শিক্ষক নিয়োগ, প্রশিক্ষণ ও মূল্যায়ন পদ্ধতিতে পরিবর্তন আনছে সরকার

শিক্ষা মন্ত্রণালয়

নিউজ ডেস্কঃ রবিবার ১১ অক্টোবর ২০২০ তারিখে আন্তর্জাতিক কন্যাশিশু দিবস উপলক্ষে আয়োজিত ‘করোনা পরিস্থিতি ও আমাদের কন্যা শিশুর ভবিষ্যৎ’ শীর্ষক একটি ওয়েব অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, সরকার পাঠক্রমে যুগোপযোগী পরিবর্তন আনছে সাথে সাথে মূল্যায়ন পদ্ধতিতে, শিক্ষক নিয়োগ এবং শিক্ষক প্রশিক্ষণে পরিবর্তন আনছে।

তিনি আরও বলেন, প্রযুক্তি ব্যবহার, নারীদের ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধী-বান্ধব শিক্ষা অবকাঠামো উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। তিনি বলেন, শিক্ষায় সবার অভিগম্যতা যেন থাকে তা সরকার নিশ্চিত করছে।

২০৩০ সনের মধ্যে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে শিক্ষাকে হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করার চেষ্টা করছে সরকার। সেইসাথে ভবিষৎ জীবন-জীবিকাকে গুরুত্ব দিয়ে আগামী দিনে সাধারণ শিক্ষায় কারিগরি শিক্ষাকে অন্তর্ভুক্ত করেছে।

অত্র ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ তৈরির কারণেই আজ দেশের বিভিন্ন প্রান্তর থেকে এ ভার্চুয়াল সভায় একত্রিত হতে পারছি আমরা। এছাড়া দেশে এখন ইন্টারনেট ব্যবহারকারী সংখ্যা ১০ কোটি ৭০ লাখ ছাড়িয়েছে।

তিনি আরও বলেন, এখন দেশের মোট ৬০ থেকে ৭০ শতাংশ শিক্ষার্থী ঘরে বসে সংসদ টিভির মাধ্যমে আমাদের ডিজিটাল শিক্ষা গ্রহণ করেছে। বাকি থাকে ৩০% যাদের হয়তো ইন্টারনেট সংযোগ নেই তাদের জন্য আমরা ৩৩৩ হেল্পডেস্কের মাধ্যমে সহযোগিতা করে যাচ্ছি। আমরা শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের মধ্যেকার সংযোগ স্থাপন করতে পেরেছি।

অত্র অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন রাখি সরকার, কান্ট্রি ডাইরেক্টর অফ রুম টু রিড।

গুগল থেকে ‘দৈনিক বিদ্যালয়’ অনলাইন পত্রিকাটি সরাসরি দেখতে dainikbidyaloy.com লিখে সার্চ দিন। শিক্ষা ও চাকুরী বিষয়ক খবরের সাথে থাকুন। ডি.বি.আর.আর।
READ MORE  তোমার সব শিক্ষককে টিকা দিয়ে নাও, যেহেতু আমরা যেকোনো সময় স্কুল খুলে দেব

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *