১লা আগস্ট, ২০২১ ইং, রবিবার, ১৭ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
ব্রেকিং নিউজঃ

টাইমস্কেলের টাকা ফেরত না দিতে ৪৯ হাজার প্রাথমিক শিক্ষকের আপিল

টাইমস্কেল : আপিল

ডিবি ডেস্ক : : জাতীয়করণ কৃত সাবেক রেজিস্ট্রার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা টাইম স্কেলের টাকা ফেরত না দিতে আদালতের দারস্থ হয়েছেন।

২০১৩-১৪ সালে জাতীয়করণ কৃত সারাদেশে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪৮ হাজার ৭২০ জন শিক্ষকদের ‘বিধি-বহির্ভূতভাবে’ দেওয়া টাইমস্কেলের টাকা ফেরতের নির্দেশনা দিয়ে আদেশ জারি করেছিল অর্থ মন্ত্রণালয়। পরবর্তীতে এ আদেশের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে শিক্ষকরা হাইকোর্টে রিট আবেদন করলেও আদালত তা খারিজ করে দেয়। এবার শিক্ষকরা হাইকোর্টের সে রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেছেন।

১৪ জুন, সোমবার সুপ্রিম কোর্টে এই আপিলটি দায়ের করা হয়। যে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জাতীয়করণ কৃত শিক্ষকদের পক্ষের আইনজীবী আপিল পরিচালনাকারী ব্যারিস্টার মোকছেদুল ইসলাম।

এবিষয়ে জানাগেছে, এর আগে গত ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৩-২০১৪ খ্রিষ্টাব্দে জাতীয়করণকৃত দেশের প্রাথমিক শিক্ষকদের টাইমস্কেলের সুবিধা ফেরত দেওয়ার বিষয়ে অর্থ মন্ত্রণালয়ের জারি করা পরিপত্র নিয়ে দায়ের করা রিটের শুনানিতে জারি করা রুল শুনানি শেষ হয় গত ২৮ মার্চ।

এবং চলতি বছরের ১ মার্চ হাইকোর্টের বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ নব্য সরকারি শিক্ষকদের করা রিট আবেদনটি খারিজ করে দেন। 
বিষয়টি নিয়ে আপিল পরিচালনাকারী আইনজীবীর ভাষ্যমতে, গত ১২ আগস্ট ২০২০ তারিখে নব্য জাতীয়করণ কৃত প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের টাইমস্কেল সুবিধা ফেরত দেওয়ার বিষয়ে অর্থ মন্ত্রণালয় একটি পরিপত্র জারি করেছিল। যে পরিপত্রে প্রাথমিকের নব্য সরকারি শিক্ষক-শিক্ষিকাবৃন্দ টাইমস্কেলের লক্ষ-লক্ষ টাকা ফেরত দেওয়ার বিপদে পড়ে যায়।

অর্থ মন্ত্রণালয়ের সেই পরিপত্রের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে শিক্ষকরা আদালতে রিট করেন। সে সময় আদালত (হাইকোর্ট) সেই পরিপত্র স্থগিত করে রুল জারি করেন। পরে সেই রিটের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষ আপিল বিভাগে আবেদন করে। এরপর ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ চেম্বার জজ আদালত হাইকোর্টের আদেশটি স্থগিত করে।

এরপর সেই স্থগিতাদেশ তুলে দিতে জাতীয় করণ কৃত শিক্ষকরা আপিল বিভাগের দারস্থ হন। এরপর ২০২১ সালে এসে ১৩ জানুয়ারি তারিখে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ তিন সপ্তাহের মধ্যে হাইকোর্ট বিভাগে রিট মামলাটি নিষ্পত্তি করতে বলেন। এরপর গত ১মার্চ শিক্ষকদের সেই আবেদনটি খারিজ করে দিয়ে রায় ঘোষণা টাইমস্কেল ফেরত দেওয়ার পক্ষে রায় দেন হাইকোর্ট। এবার ১৪ জুন, সোমবার সেই রায়কে চ্যালেঞ্জ করে যাতে টাইম স্কেলের টাকা ফেরত না দেওয়া লাগে সেজন্য সুপ্রিম কোর্টে আপিল করেছেন শিক্ষকরা। এবিষয়ে আরো বিস্তারিত তথ্য আছে দৈনিক বিদ্যালয়ের এই পোস্টে ৪৮ হাজারের বেশি প্রাথমিক শিক্ষক টাইমস্কেলের জন্য আদালতে যাচ্ছেন

ডিবি আর আর।

সংবাদটি শেয়ার করতে এখানে ক্লিক করুন

ফেসবুকে লাইক দিন