২৭শে অক্টোবর, ২০২১ ইং, বুধবার, ১২ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ সপ্তাহেই সারপ্রাইজ ভিজিট

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়

দৈনিক বিদ্যালয় রিপোর্ট : : ১৭ সেপ্টেম্বর, বৃহস্পতিবার প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে জানানো হয়েছে; দেশের প্রাথমিক বিদ্যালয় সমুহে স্বাস্থ্যবিধিসহ সরকার ঘোষিত নির্দেশনা মানা হচ্ছে কি না এ বিষয়ে এ সপ্তাহ থেকে আকস্মিক পরিদর্শন বা সারপ্রাইজ ভিজিট শুরু হচ্ছে।

আরও খবর: প্রাথমিকের শিক্ষা কার্যক্রম পরিদর্শনের জন্য ৬৪ জেলায় মেন্টর নিয়োগ

বিষয় : প্রাথমিক শিক্ষকদের স্কুল ত্যাগের সময় নির্ধারণ

প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও মাদ্রাসার নতুন কারিকুলামে যত পরিবর্তন

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের নির্ধারিত ও দায়িত্বপ্রাপ্ত মোট ৫৫ জন কর্মকর্তা দেশের বিভিন্ন এলাকার প্রাথমিক বিদ্যালয় সনুহে পরিদর্শন করবেন।

এবিষয়ে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, আলমগীর মুহম্মদ মসনুরুল আলম জানান, প্রাথমিক বিদ্যালয় সমুহে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে দায়িত্বপ্রাপ্ত ৫৫ জন কর্মকর্তা সারা দেশের বিভিন্ন বিদ্যালয়ে সারপ্রাইজ ভিজিট শুরু করবেন। তিনি বলেন,  আগে থেকে না জানিয়েই বিদ্যালয়ে হঠাৎ করেই পৌঁছে যাবেন তারা। তারা দেখবেন; বিদ্যালয়ে স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে কি না, ছাত্র-ছাত্রীদের শিখন ঘাটতি পূরণে রুটিন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে কি না। এছাড়া শিক্ষকরা ঠিকমতো বিদ্যালয়ে উপস্থিত থাকছেন কি না তা পর্যবেক্ষণ করবেন মেন্টররা।

এখানে উল্লেখ্য, কোভিড-১৯ পরিস্থিতির কারণে দীর্ঘ দেড় বছর সশরীরে শিখন-শেখান কার্যক্রম বন্ধ থাকার পর গত ১২ সেপ্টেম্বর থেকে দেশের প্রাথমিক, মাধ্যমিক স্কুল ও কলেজে সমুহে সশরীরে শ্রেণি কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এজন্য শিক্ষার্থীদের শিখন ঘাটতি পূরণের ব্যবস্থা রেখে রুটিন তৈরি করেছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর। এক্ষেত্রে শিক্ষার্থীদের সর্বোচ্চ স্বাস্থ্যবিধি ও শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিত করে শ্রেণি পাঠদান করানোর নির্দেশনা দিয়েছে সরকার। সেই নির্দেশনায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান পরিচ্ছন্ন ও স্বাস্থ্যসম্মত ব্যবস্থাও নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে। দায়িত্ব প্রাপ্ত মনিটরিং অফিসারবৃন্দ এসব বিষয়গুলো মাঠ পর্যায়ের প্রাথমিকে ঠিকমতো মানা হচ্ছে কিনা তা যাচাই করতে শিক্ষা কর্মকর্তাদের প্রতিও নির্দেশনা রয়েছে। আর সেজন্যই মূলত তারা এসপ্তাহ থেকে প্রাথমিক বিদ্যালয় সমুহে এই আকস্মিক বা সারপ্রাইজ মনিটরিং শুরু করবেন বলে জানিয়েছে অধিদপ্তর।

এখানে আরও উল্লেখ্য, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সমন্বয় ও মনিটরিং শাখা থেকে গত ০৯ সেপ্টেম্বর তারিখে এই সারপ্রাইজ ভিজিটিং এর জন্য মেন্টর নিয়োগ করার বিষয়টি সংশ্লিষ্টদের এক আদেশের মাধ্যমে জানানো হয়।

সেই আদেশে যা ছিল তা নিম্নে উল্লেখ করা হল:

আগামী ১২ সেপ্টেম্বর ২০২১ তারিখে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শ্রেণিকক্ষে পুনরায় পাঠদান কার্যক্রম চালু করা হবে। প্রাথমিক শিক্ষার মানােন্নয়নের লক্ষ্যে ৬৪ জেলায় প্রাথমিক শিক্ষা কার্যক্রম পরিবীক্ষণ করার জন্য মেন্টর নিয়ােগ করা হয়েছে।

এমতাবস্থায়, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শ্রেণিকক্ষে পাঠদান কার্যক্রম পরিবীক্ষণের প্রয়ােজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য
নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

৬৪ জেলার প্রাথমিকের পাঠদান পর্যবেক্ষণ করার জন্য প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মেন্টরগণ হল (জ্যেষ্ঠতার ভিত্তিতে নয়):

১. মহাপরিচালক (গ্রেড-১), প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর, মিরপুর, ঢাকা।
২. অতিরিক্ত সচিব (সকল), প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।
৩. বিভাগীয় কমিশনার, ঢাকা; চট্টগ্রাম; সিলেট; রাজশাহী; খুলনা; বরিশাল; রংপুর; ময়মনসিংহ।
৪. মহাপরিচালক, উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা ব্যুরাে; জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা একাডেমি;
বাধ্যতামূলক প্রাথমিক শিক্ষা বাস্তবায়ন পরিবীক্ষণ ইউনিট।
৫. যুগ্মসচিব (সকল), প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।
৬. জেলা প্রশাসক (সকল)।
৭, উপসচিব (সকল), প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।
৮. পরিচালক, শিশু কল্যাণ ট্রাস্ট, মিরপুর, ঢাকা।
৯. মাননীয় প্রতিমন্ত্রীর একান্ত সচিব, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।
১০. সচিবের একান্ত সচিব, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।
১১. নির্বাহী প্রকৌশলী, এলজিইডি (সকল)।
১২. নির্বাহী প্রকৌশলী, ডিপিএইচই (সকল)।
১৩. সিস্টেম এনালিস্ট, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা (পত্রটি মন্ত্রণালয়ে ওয়েবসাইটে প্রকাশের অনুরােধসহ)।
১৪. চিফ একাউন্টস এন্ড ফিন্যান্স অফিসার, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, সেগুনবাগিচা, ঢাকা।
১৫. বিভাগীয় উপপরিচালক, প্রাথমিক শিক্ষা, ঢাকা; চট্টগ্রাম; সিলেট; রাজশাহী, খুলনা; বরিশাল; রংপুর; ময়মনসিংহ।
১৬. হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।
১৭. জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার (সকল)।
১৮. উপজেলা/ থানা শিক্ষা অফিসার (সকল)।

(উল্লেখ্য, এই মেন্টরগণ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাঠদান কার্যক্রম পর্যবেক্ষণের জন্য আকষ্মিক পরিদর্শন করে শিক্ষার মানোন্নয়নে যে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারেন।) -ডিবি আর আর।

সংবাদটি শেয়ার করতে এখানে ক্লিক করুন

ফেসবুকে লাইক দিন